সিসি ক্যামেরা ইনষ্টল করার আগে যেই বিষয় গুলি অবশ্যই জানতে হবে। Best CC Camera Brand bd । Ucchas

Best CC Camera Brand bd

সিসিক্যামেরা। সমসাময়িক সময়ে একটি গুরুত্বপূর্ন দরকারী ইলেকট্রনিক্স ডিভাইস। আপনি যদি সিসি ক্যামেরা ইনষ্টল করতে চান তাহলে যেসব বিষয় আপনাকে মাথায় রাখতে হবে।

Brand : বাংলাদেশের বাজারে অসংখ্য মানহীন ব্রাণ্ডের ইলেকট্রনিক্স পণ্যে সয়লাব হয়ে গিয়েছে। এসব ব্রাণ্ডের অসুবিধা হল এই গুলির সার্ভিস পাবেন না। নষ্ট হলে রিপায়রিং করাতে পার্টস পাওয়া যাবেনা। নেই বিক্রয়ত্তর সেবা, ওয়ারেন্টি গ্যারান্টি !

চটকদার বিজ্ঞাপন বা দোকানের সেলসম্যানের মিথ্যা চাটুকারিতায় ভুলেও বিশ্বাস করবেন না।

সেলসম্যান সেই পণ্য বেশি বিক্রি করতে চায় যেটা বিক্রি করতে পারলে তিনি বেশি লাভ করতে পারবেন। অর্থা‌ৎ তার কাছে আপনার চাহিদার কোনই মূল্য নেই!

তাই সিসি ক্যামেরা কিনতে হলে আগে দেখুন বিশ্বের সেরা Brand কোনটি ।

বর্তমান সময়ে surveillance camera ব্রাণ্ড গুলির মধ্য শীর্ষে রয়েছে dahua ! দাহুয়ার লোগোটি একটু অন্য রহম মানে d এর মধ্য a বর্ণটি দিয়ে রেখেছে এরফলে অনেকেই আহুজা বানান করে !

আমি নিজেও প্রথম দিকে বিভ্রাণ্ত হয়ে ছিলাম। যাইহোক দাহুয়ার সুবিধা হল এটি ইউজার ফ্রেণ্ডলি। ছবির মান ভাল । অথরাইজ সেলস সেন্টার থেকে কিনলে পাবেন ১ বছরের রিপ্লেসমেন্ট ওয়ারেন্টি !

এরপরে বিশ্বে দ্বিতীয় ভাল ব্রাণ্ড হচ্ছে Hickvision । হিকভিশনের ছবির মান ভাল । বাংলাদেশে এটি জনপ্রিয় ব্রাণ্ড। অনেকেই হিকভিশন ব্যভহার করেন কারণ এটি দীর্ঘ সময় ধরে ভাল পারফর্মেন্স করে যাচ্ছে। তবে সম্যসা হল এটি নেটওয়ার্কিং সিষ্টেম জটিল। মোবাইল বা ল্যাপটপে লাইভ ভিডিও দেখার যেই এ্যাপশ হিকভিশন তৈরি করেছে সেই সার্ভারটি অনেক সময় ভাল কাজ করেনা।

তবে এর বাইরে ভিকভিশন CC Camera Brand হিসাবে ভাল অবদান রাখছে।

Jovision অল্প বাজেটে যারা ক্যামেরা ইনষ্টল করতে চান তারা এই ব্রাণ্ড টি কিনতে পারেন। সাধারণত পাড়া মহল্লার সিসি ক্যামেরার দোকান গুলিতে জোভিশন দিয়ে প্যাকেজ তৈরি করে ক্যামেরা বিক্রি করা হয়ে থাকে। ক্যামেরার দাম কম তাই রেজুলেশনসহ আরো কিছু সিমাবদ্ধতা রয়েছে।

আসল নাকি নকল ব্রাণ্ড ?

বাংলাদেশের গ্রাহক এবং ব্যাবসায়ী এই দুই শ্রেনি ভীষণ চালাক। গ্রাহক চায় অতিরিক্ত কমদামে কিনতে আর ব্যাবসায়ী চায় অতিরিক্ত ব্যবসা করতে !

এদের জন্যই মূলত কপি বা নকল প্রডাক্ট বাজারে সয়লাব। এক শ্রেনির অস‌ৎ ব্যবসায়ী চায়না গিয়ে ভাল ব্রাণ্ড গুলির জনপ্রিয় মডেলের ইলেকট্রনিক্স পণ্য গুলি নকল করে লো বাজেটে তৈরি করে আনেন। এই পন্য গুলি চায়না থেকে এনে দেশের ইলেকট্রনিক্স বাজারে সেল করা হচ্ছে। কপি প্রডাক্ট চেনা সাধারণ গ্রাহকের জন্য অনেক কঠিন এখন। বিশেষ করে বার কোড পযন্ত নকল হরা যাচ্ছে এখন !

অনলাইনের ভুইফোড় ফেসবুক পেজ বা ইউটিউবের ভিডিও দেখে পণ্য কেনা থেকে বিরত থাকুন। যেসব প্রতিষ্ঠানের সরকারী অনুমোদন নেই। গ্লোবাল ব্রাণ্ডের অথরাইজ সার্টিফিকেট নেই তাদের থেকে পণ্য কেনার ব্যাপারে সচেতন হন।

অল্প কয়েকটি টাকা বাচাতে গিয়ে ননঅথরাইজ শপ থেকে কপি প্রডাক্ট কিনবেন না। প্রয়োজনে অভিজ্ঞ কারো সহয়তা নিতে পারেন।

ওয়ারেন্টি বা গ্যারান্টি পলেসি:

ইলেকট্রনিক্সস পণ্য কিনতে গিয়ে তাড়াহুড়া করবেন না, সেলসম্যানের হাসিমুখ বা এককাপ কফি খেয়ে ক্রয় করে ফেলবেন না। কেনার আগে অবশ্যই ওয়ারেন্টি বা গ্যারান্টি পলেসি সম্পর্কে ভাল করে জেনে নিন। কাগজ পত্র বা documents বুঝে নিন।

Service: একটি গুরুত্বপূর্ন ইস্যু। পণ্য সবাই বিক্রি করে কিন্তু সবার সার্ভিস দেবার ক্ষমতা থাকেনা। বিশেষ করে Evally Daraz সহ এই টাইপের অনলাইন থেকে অর্ডার করে কয়েক মাস পর পণ্য হাতে পেলেও নষ্ট হলে কৈ যাবেন আপনি? এই সম্পর্কে আপনার ভাল ধারণা আছে কি?

প্রডাক্ট কেনার আগে তাই নিষ্চিত হতে হবে প্রতিষ্ঠানটির Service Team আছে কিনা। আলাপ করে জেনে নিন সার্ভিস পলেসি।

ক্যামেরার কোথায় লাগাবেন?

এটি একটি গুরুত্বপূর্ন প্রশ্ন কারণ ঘরের মধ্য বা Indoor এ আমারা সাধারণত Dome Camera ইনষ্টল করতে উপদেশ দেই কারণ ডোম ক্যামেরার ভিউ এ্যাঙ্গেল বেশি থাকে। মানে ১০৩ ডিগ্রি।

আর বাইরের সাইট বা আউট ডোর ভিউ এর জন্য দরকার Water Prove Camera । ওয়ারটার প্রুফ বলতে আমরা Bullet Camera  বুঝিয়ে থাকি। সাধারণত 87 Degree ক্যাপচার করে বুলেট ক্যামেরা।

Install এর আগে তাই হিসাব করুন আউটডোর আর ইনডোর কোথায় কয়টা ক্যামেরা লাগবে।

Camera storage: কত দিনের ব্যাকআপ ভিডিও আপনি আপনার XVR /NVR মেশিনে জমা রাখতে চান সেটি মূলত নির্ভর করে মেশিনের ব্যবহিত হার্ডড্রাইভ টি কত টেরা বাইটের তার উপর। ক্যামেরার অনুপাতে এটি হিসাব করে বের করতে হবে। সাধারণত ১৫ থেকে ৩০ দিনের ব্যাকআপ রেখে দিতে পারেন। এই জন্য ভাল Hard Drive কেনা জরুরী।

ক্যামেরা ইনষ্টল : একটি গুরুত্বপূর্ন কাজ । আপনি নিজে যদি ইনষ্টল করতে পারেন খুবেই ভাল না পারলে YouTube থেকে শিখতে পারেন। যদিও সেটি সবার জন্য টাফ কাজ। তবে দক্ষ কাউকে দিয়েই আপনার প্রজেক্ট টির কাজ করাতে পারেন। কারণ অদক্ষ লোকের হাতে পড়লে আপনার ভাল ডিভাইস থেকেও সেরা Output পাবেন না।

ধন্যবাদ সবাইকে।

 

@লেখাটির কপিরাইট সংরক্ষিত।

 

লিখেছেন ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার

MM Obaydur Rahman

CEO

Ucchas.com

 

 

 

 

 

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *